1. clients@www.dainikbangladesh71sangbad.com : DainikBangladesh71Sangbad :
  2. frilixgroup@gmail.com : Frilix Group : Frilix Group
  3. kaziaslam1990@gmail.com : Kazi Aslam : Kazi Aslam
মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ০২:৩৩ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
জরুরী নিয়োগ চলছে জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল দৈনিক বাংলাদেশ ৭১ সংবাদ দেশের প্রতিটি বিভাগীয় প্রতিনিধি, জেলা,উপজেলা, স্টাফ রিপোর্টার, বিশেষ প্রতিনিধি, ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি, ক্যাম্পাস ও বিজ্ঞাপন প্রতিনিধি বা সাংবাদিক নিয়োগ চলছে। সাংবাদিকতা সবার স্বপ্ন, আর সেই স্বপ্ন পূরণ করতে আপনাদেরকে সুযোগ করে দিচ্ছে দৈনিক বাংলাদেশ ৭১ সংবাদ দেখিয়ে দিন সাহসীকতার পরিচয়, অন্যায়ের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে সাংবাদিকতার বিকল্প নেই। আপনার আশপাশের ঘটনা তুলে দরুন সবার সামনে।হয়ে উঠুন আপনিও সৎ, সাহসী সাংবাদিক। দৈনিক বাংলাদেশ ৭১ সংবাদ পোর্টাল নিয়োগ এর নিদের্শনাবলী: ১/জীবন বৃত্তান্ত ( cv) ২/জাতীয় পরিচয় পত্রের ফটোকপি। ৩/সদ্যতোলা পাসপোর্ট সাইজের ছবি ১কপি। ৪/সর্বনিম্ন এইচএসসি পাস/সমমান পাস হতে হবে। ৫/বিভিন্ন নেশা মুক্ত হতে হবে। ৬/নতুনদের অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। ৭/স্মার্টফোন ও ইন্টারনেট সংযোগ থাকতে হবে। ৮/স্মার্টফোন ব্যবহারে পারদর্শী হতে হবে। ৯/দ্রুত মোবাইলে টাইপ করার দক্ষতা থাকতে হবে। ১০/বিভিন্ন স্থানে ভ্রমন এর মানসিকতা থাকতে হবে। ১১/সৎ ও পরিশ্রমী হতে হবে। ১২/অভিজ্ঞতার প্রয়োজন নেই। ১৩/নারী-পুরুষ আবেদন করতে পারবেন। ১৪/রক্তের গ্রুপ যুক্ত করবেন। ১৫/স্থানীয় দের সাথে পরিচয় লাভ করতে হবে। ১৬/উপস্থিত বুদ্ধি, সঠিক বাংলা বানান, ও শুদ্ধ বাংলায় পারদর্শী হতে হবে। ১৭/ পরিশ্রমী হতে হবে যোগাযোগের জন্য ইনবক্সে মেসেজ করুন cv abuyousufm52@gmail.com দৈনিক বাংলাদেশ ৭১সংবাদ মোবাইল নং(01715038718)

একমাত্র ছেলেকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করে আবাসিক হোটেলে মায়ের আত্নহত্যা

Reporter Name
  • প্রকাশিত: বুধবার, ২ জুন, ২০২১
  • ১৭৮ বার পড়া হয়েছে

বাহাদুর চৌধুরীঃ সাংবাদিক নির্যাতন বিরোধী সংগঠন ও
৬৪ জেলার সাংবাদিক ফাউন্ডেশন
নরসিংদী শহরের একটি আবাসিক হোটেলের দরোজা ভেঙে নারীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধারের ঘটনার তদন্তে নতুন মোড় নিয়েছে। ঘটনার তদন্ত করতে গিয়ে পুলিশ জানতে পেরেছে ওই নারী নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে নিজের সন্তানকে হত্যা করে নরসিংদী শহরের এই হোটেলটিতে নিজেও আত্মহত্যা করেছেন। পুলিশ বলছে, সন্তানকে হত্যার পর আত্মহত্যা করতেই ওই নারী আবাসিক হোটেলটিতে উঠেছিলেন।

গতকাল সোমবার বিকেলে নরসিংদী শহরের বাজীরমোড় এলাকার হোটেল নিরালা নামের একটি আবাসিক হোটেলের নিচতলার ৬ নাম্বার কক্ষ থেকে ওই নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়। এর আগে গত রোববার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর ছেলে নাজমুস সাকিব ওরফে নাবিলের (২০) মৃত্যু হয়।

হোটেলটির রেজিস্টারে ওই নারী নিজের নাম রেহানা আক্তার (৩০) লিখলেও তাঁর আসল নাম নাসরিন আক্তার (৪০)। নাসরিন আক্তার নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ এলাকার ব্যাংক কর্মকর্তা ছগির আহমেদের স্ত্রী। অন্যদিকে তাঁর ছেলে নাজমুস সাকিব ওরফে নাবিল ডেমরার গলাকাটা এলাকায় দারুন নাজাত সিদ্দিকিয়া কামিল মাদ্রাসার ছাত্র ছিলেন। পরিবারটির বসবাস নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের পাইনাদী নতুন মহল্লায়।

পুলিশ বলছে, গত রোববার নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের পাইনাদী নতুন মহল্লার বাসায় রাত আটটার দিকে কর্মস্থল থেকে ফেরেন ছগির আহমেদ। এ সময় তিনি ঘর বাইরে থেকে তালাবদ্ধ অবস্থায় দেখতে পান। পরে তাঁর কাছে থাকা দ্বিতীয় চাবি দিয়ে তালা খুলে ঘরে ঢুকে দেখেন রক্তাক্ত অবস্থায় তাঁর ছেলে নাবিল আর্তনাদ করছেন। তাঁর বুক, পেট ও মাথায় ধারালো কিছুর আঘাতের চিহ্ন। এ সময় স্ত্রী নাছরিনকে বাসায় পাননি। তিনি ছেলে নাবিলকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে সিদ্ধিরগঞ্জে সাইনবোর্ড প্রো-অ্যাকটিভ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। পরে রাত আড়াইটার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় নাবিলের মৃত্যু হয়। অন্যদিকে নাসরিন আক্তার রোববার সন্ধ্যা ৭টার দিকে নরসিংদী শহরের বাজীরমোড় এলাকার হোটেল নিরালা নামের ওই আবাসিক হোটেলে রাত্রিযাপন করতে উঠেন। পরদিন দুপুরে গলায় ওড়না প্যাঁচানো অবস্থায় তাঁর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

হোটেল কর্তৃপক্ষ বলছে, রোববার সন্ধ্যা ৭টার দিকে ওই নারী আমাদের জানিয়েছিলেন, গাজীপুর থেকে তিনি এখন এসেছেন, রাত হয়ে যাওয়ায় এই হোটেলে থাকতে চান। রেজিস্টারে নাম-ঠিকানা লেখার পর ওই নারীকে হোটেলটির নিচতলার ৬ নাম্বার কক্ষে থাকতে দেওয়া হয়। পরদিন সকালে তাঁর কোন সাড়াশব্দ না পেয়ে তাঁর দরোজায় অনেকক্ষণ ডাকাডাকি করেন হোটেলটির কর্মচারীরা। পরে নরসিংদী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার (ওসি) মুঠোফোনে কল করে ঘটনা জানানো হয়। পরে দুপুরে দিকে পুলিশ এসে ওই কক্ষের দরোজা ভেঙে তাঁর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে।

ছগির আহমেদ জানান, তাঁর স্ত্রী নাসরিন আক্তার মানসিক ভারসাম্যহীন ছিলেন। মাঝেমধ্যে তাঁর স্মৃতিশক্তি লোপ পায়। ছেলে নাবিলকে বিয়ে দেওয়ার পর থেকে ছেলেবউ এর সঙ্গে প্রায়ই তাঁর মনোমালিন্য হত। ঘটনার দিন আমার ছেলেবউ তাঁর বাপের বাড়িতে ছিল। তবে তাঁর স্ত্রী নিজের ছেলেকে খুন করে ফেলবেন এমন ভাবনা তিনি ভাবতেও পারছেন না।

নরসিংদী মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আতাউর রহমান জানান, আবাসিক হোটেল থেকে ওই নারীর লাশ উদ্ধারের পর সুরতহাল শেষে ময়না তদন্তের জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়। এই ঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হওয়ার পর তাঁর ফিঙ্গার প্রিন্ট সংগ্রহ করে নাম-পরিচয় ও ঠিকানা নিশ্চিত হই আমরা। পরে নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ থানার সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে প্রকৃত ঘটনা জানতে পারি। ওই নারী নিজের সন্তানকে হত্যা করে নরসিংদীর ওই আবাসিক হোটেলে নিজেও আত্মহত্যা করেছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
Copyright © 2020 DainikBangladesh71Sangbad
Theme Designed BY Kh Raad ( Frilix Group )